রান্না – ঘর

এক সাথে ১৮টি কেক রেসিপি, সেয়ার দিয়ে সেভ করে রাখুন (ভিডিও সহ)

উপকরণ:  চকলেট বিস্কুটের গুঁড়া ৪ কাপ। মাখন ২ কাপ।  ভ্যানিলা আইসক্রিম ৬ কাপ।  চকলেট আধা কাপ (যে কোনো বার চকলেট ছোট ছোট টুকরা করে কাটা)। পাকাআম আধা কাপ। বেকিংয়ের জন্য স্প্রিংফ্রমকেক প্যান (যার দুই পাশে দুইটা লক থাকে এবং ভিতরের প্যানপ্লেট আলাদা করে খোলা যায়)।

সাজানোর জন্য: হুইপ ক্রিম অথবা বাটার ক্রিম।  আস্ত অরিওবিস্কুট। গোল্ডেন ও চকলেট সিরাপ পরিমাণমতো।

প্রণালী: প্রথমে আস্ত চকলেট ক্রিম এবং বিস্কুট এমন পরিমাণে নিতে হবে যাতে গুঁড়া করার পর চারকাপ হয়৷ বিস্কুটের ক্ষেত্রে পছন্দমতো যেকোনো বিস্কুট দিয়ে করতে পারেন । কেক বানানোর কিছুক্ষণ আগে ডিপফ্রিজ থেকে আইসক্রিম বের করে রাখুন। যাতে আইসক্রিম একটু নরম হয়। বেকিং কেকপ্যানের চারপাশে মাখন ব্রাশ করে নিন। গুঁড়া করা বিস্কুটের সঙ্গে মাখন মেশান। এমনভাবে মেশাতে হবে যেন হাতে মুঠো করলে বল তৈরি করা যায়। আইসক্রিম ২টি বাটিতে ভাগ করে নিন এবং একটি বাটির আইসক্রিমের সঙ্গে কাটা আমগুলো মিশিয়ে নিন৷

অপর বাটির আইসক্রিমের সঙ্গে চকলেট মিশিয়ে রাখুন৷ বেকিং কেকপ্যানে প্রথমে মাখন মেশানো বিস্কুটের গুঁড়া অর্ধেক দিয়ে হাত দিয়ে চেপে চেপে সমানভাবে বসিয়ে নিন। ২০ মিনিটের জন্য ডিপ ফ্রিজে রাখুন। ২০ মিনিট পর শক্ত হলে এর উপর আম মেশানো আইসক্রিম ঢেলে দিয়ে লেয়ার করুন। তারপর আবার ডিপফ্রিজে রাখুন ২০ মিনিট। এবার ২০ মিনিট পর আইসক্রিম একটু শক্ত হলে মাখন মাখানো বাকি অর্ধেক বিস্কুটের গুঁড়া আইসক্রিমের উপর দিয়ে তৃতীয় লেয়ার তৈরি করে আবার ২০ মিনিটের জন্য ডিপফ্রিজে রেখে দিন। শেষ লেয়ারের জন্য বিস্কুটের গুঁড়া শক্ত হওয়ার পর এর উপর চকলেট মেশানো আইসক্রিম সমান করে দিয়ে শেষ লেয়ার করুন। তারপর ডিপফ্রিজে রেখে দিন।

চার ঘণ্টা পর ফ্রিজ থেকে বের করে কেকপ্যানের ভিতরের চারপাশে ছুরি দিয়ে আইসক্রিম কেক আলগা করে নিন। বেকিং কেকপ্যানের লক খুলে খুব সাবধানে কেকটি উপর থেকে কেকপ্যানে তুলে নিন। আর কেকের উপরে গোল্ডেন ও চকলেট সিরাপ শেষে হুইপ ক্রিম বা বাটার ক্রিম দিয়ে এর উপর বিস্কুট সাজিয়ে সঙ্গে সঙ্গে পরিবেশন করুন।

ডোরেমন ডোরা কেক

উপকরণ: ময়দা ২ কাপ, ডিম ২ টা ডিম, চিনি ১ কাপ, তেল/বাটার ৪ টেবিল চামচ, লিকুইড দুধ দেড় কাপ, বেকিং পাউডার ২ চা চামচ, লবণ হাফ চা চামচ

প্রণালী: একটা বাটিতে ময়দা, লবণ, বেকিং পাউডার নিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিন। এবার একটা বড় বাটিতে ডিম ও চিনি দিয়ে খুব ভালো করে মিশিয়ে নিন। এরপর চিনি গলে গেলে দুধ দিয়ে আবার খুব ভালো করে মিশিয়ে নিন। এবার এই মিশ্রণে মিশিয়ে রাখা ময়দা চেলে হালকা ভাবে মিশাতে হবে। মিশ্রণটা রেডি হয়ে গেলে চুলার আঁচ খুব কম রেখে একটা ননস্টিক প্যানে এক চামচ করে মিশ্রণটা দিন ও ১০/১২ সেকেন্ড ঢেকে রাখুন। এরপর যখন উপরে বাবল উঠবে তখন উলটে দিন। এভাবে সবগুলো বানিয়ে নিয়ে ভিতরে চকলেট মেলড বা নিউটেলা, নসিলা, বাটার দিয়ে বা এমনিতেই খেতে খুব মজা লাগবে।

রেড ভেলভেট ক্যারামেল পুডিং কেক

উপকরণ:পুডিং এর জন্য:– ২টি ডিম– ১ কাপ দুধ– আধা কাপ কনডেন্সড মিল্ক– ১ চা চামচ ভ্যানিলা এসেন্স

ক্যারামেলের জন্য:– ৩ টেবিল চামচ চিনি

কেক এর জন্য:– ২টি ডিম– আধা কাপ তেল– আধা কাপ চিনি– আধা কাপ দুধ– ১ কাপ ময়দা

– ১ টেবিল চামচ কোকো পাউডার– ১ চা চামচ বেকিং পাউডার– ১ চা চামচ সাদা ভিনেগার– ১ চা চামচ ভ্যানিলা এসেন্স– ১ চা চামচ রেড ফুড কালার

 

প্রণালী

:১) প্রথমেই পুডিং এর মিশ্রণ তৈরি করে নিন। দুধ এবং কনডেন্সড মিল্ক বিট করে মিশিয়ে নিন। অন্য একটি পাত্রে ডিম দুটো ফেটে নিন। ডিমের সাথে দুধের মিশ্রণ এবং ভ্যানিলা এসেন্স দিয়ে আবারো বিট করে নিন ভালোভাবে।

২) যে পাত্রে কেক তৈরি করবেন তাতে ৩ টেবিল চামচ চিনি গলিয়ে ক্যারামেল তৈরি করে নিন।

৩) আধা কাপ দুধের সাথে ভিনেগার মিশিয়ে রেখে দিন ১০ মিনিট। এটা ঘরে তৈরি বাটারমিল্ক হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন।

৪) অন্য একটি পাত্রে ডিম নিয়ে ইলেকট্রিক মিক্সার দিয়ে খুব ভালোভাবে বিট করে নিন ২ মিনিট। এরপর এতে চিনি দিয়ে আবারো বিট করে নিন। চিনি গলে জাবার পর এতে তেল, ভ্যানিলা এসেন্স এবং ফুড কালার দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিন।

৫) একটি চালনির সাহায্যে শুকনো উপকরণ অর্থাৎ ময়দা, কোকো পাউডার এবং বেকিং পাউডার যোগ করুন এই মিশ্রণে। একটি চামচের সাহায্যে ফোল্ড করে মিশিয়ে নিন সবকিছু। এতে বাটারমিল্ক দিয়ে মিশিয়ে নিন।

৬) ক্যারামেল সেট করা পাত্রে চাকনির সাহায্যে প্রথমে ছাঁকনির সাহায্যে পুডিং এর মিশ্রণ দিন। এরপর এর ওপরে কেকের মিশ্রণ দিয়ে দিন। চিন্তার কিছু নেই, মিশ্রণ দুইটি আলাদাই থাকবে। ঢাকনা বন্ধ করে দিন।

৭) এবার একটি প্যান চুলায় দিন। এতে একটি স্ট্যান্ড এবং পানি দিন। স্ট্যান্ডে কেকের পাত্রটি রাখুন। লক্ষ্য রাখুন যেন কেকের বাটির মাঝ বরাবর পানি থাকে, তার বেশি থাকলে ভেতরে পানি চলে যেতে পারে। এবার প্যানের ঢাকনা বন্ধ করে ৪৫ মিনিট মিডিয়াম আঁচে রাখুন। ৪৫ মিনিট পর কেকের ভেতরে একটি কাঠি ঢুকিয়ে দেখুন, কাঠি পরিষ্কার হয়ে বের হয়ে এলে কেক হয়ে গেছে। বের করে ঠাণ্ডা করে নিন এবং ফ্রিজে রাখুন ১ ঘন্টার জন্য। এরপর পছন্দমত কেটে পরিবেশন করুন।

চকলেট পেস্ট্রি কেক

কেকের উপকরণ :১. ময়দা আধা কাপ ও ৬ টেবিল-চামচ,২. কোকো পাউডার ৬ টেবিল-চামচ,৩. ডিম ১টি। চিনি ১ কাপ,৪. লবণ ১/৪ চা-চামচ,৫. তরল দুধ আধা কাপ,৬. তেল ১/৪ কাপ,৭. গরম কফি আধা কাপ,৮. বেকিং পাউডার আধা চা-চামচ,৯. ডার্ক চকলেট গলিয়ে নেওয়া ১/৪ কাপ।

কেক তৈরি :> একটি বাটিতে ময়দা, চিনি, কোকো পাউডার, বেকিং পাউডার ও লবণ মিশিয়ে রাখুন। আরেকটি পাত্রে ডিম, দুধ, চকলেট ও তেল মিশিয়ে নিন। এবার ময়দার মিশ্রণ দিয়ে দিন। ভালো করে মিশিয়ে গরম কফি ঢেলে মেশান। এবার কেকের পাত্রে ঢেলে ওভেনে ১৮০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ৩০ মিনিট বেইক করুন। হয়ে গেলে ঠাণ্ডা করে তিন ভাগ করে কেটে রাখুন।

কেকের ক্রিমের উপকরণ :১. মাখন ১০০ গ্রাম,২. আইসিং সুগার ১ কাপ,৩. খুব ঠাণ্ডা তরল দুধ ১/৩ কাপ,৪. কফি পাউডার আধা চা-চামচ,৫. গলানো চকলেট ২ চা-চামচ।

ক্রিম তৈরি : মাখন একটু বিট করে নিন। এবার মাখনের সঙ্গে অল্প অল্প করে আইসিং সুগার ও দুধ মিশিয়ে ভালোভাবে বিট করে নিন। চকলেট ক্রিমের জন্য কিছু ক্রিমের সঙ্গে কফি আর চকলেট মিশিয়ে নিন। ফ্রিজে রাখুন এক ঘণ্টা।

পেস্ট্রি তৈরি : প্রথমে এক ভাগ কেক নিয়ে চকলেট ক্রিম দিন। কিছু গলানো চকলেট দিন। আরেক ভাগ কেক রেখে সাদা ক্রিম দিন। এবার শেষ ভাগ কেক রেখে সাদা ক্রিম দিয়ে সাজিয়ে উপরে গলানো চকলেট দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন দারুণ মজার চকলেট পেস্ট্রি।

 

 

বেসিক স্পঞ্জ কেক

উপকরণ: ডিমঃ ৪ টি, ময়দাঃ হাফ (১/২) কাপ, বেকিং পাউডারঃ ১/২ চা চমচ, পাউডার সুগার বা আইসিং সুগারঃ ১ কাপ, ভ্যানিলাঃ ১/২ চা চামচ, গুঁড়া দুধঃ ২ চা চামচ

প্রণালী: প্রথমে ডিমগুলোর সাদা অংশ কুসুম থেকে আলাদা করে নিতে হবে। এরপর ইলেকট্রিক এগ বিটার বা হ্যান্ড বিটার দিয়ে বিট করে সাদা অংশ ফোম করে নিতে হবে। এমন ভাবে ফোম করতে হবে যেন পাত্র উপর করলে তা পড়ে না যায়।এরপর চিনি মিশিয়ে আবার বিট করতে হবে। ভালোভাবে মিশে এলে ডিমের কুসুম ও ভ্যানিলা দিতে হবে। পুনরায় বিট করতে হবে। ময়দা, গুঁড়ো দুধ ও বেকিং পাউডার একসাথে মিশিয়ে চেলে নিতে হবে এবং ডিমের মিশ্রণের সাথে ধীরে ধীরে যোগ করতে হবে।

আবার বিট করতে হবে। মিশ্রণটি তেল বা গ্রীজ মাখানো বেকিং ট্রেতে ঢালতে হবে যেন বের করার সময় কেকটি পাত্রে লেগে না যায়। ১৬০ ডিগ্রী সেলসিয়াস তাপমাত্রায় প্রিহিট করা ওভেনে ৩০ মিনিট বেক করতে হবে। শেষের দিকে চাকু বা টুথপিক দিয়ে কেকের মাঝের অংশ কাঁচা আছে কিনা দেখে নিতে হবে। কেক হয়ে গেলে ও উপরে বাদামি রং ধারণ করলে ঠাণ্ডা করে কেটে পরিবেশন করতে হবে।

 

বাস্কেট কেক

উপকরণ : ডিম ৪টি,  চিনি ১/২ কাপ,  ময়দা ১/২ কাপ, ভ্যানিলা লিকুইড ১ চা চামচ,  বেকিং পাউডার ১/২ চা চামচ, কেক ইম্প্রুভার ১ চা চামচ, ভ্যানিলা পাউডার ১ চা চামচ।

সুগার সিরাপ : কেক মাঝখানে কেটে ভিতরে সুগার সিরাপ দিয়ে ক্রীম বসাতে হবে। বেড়া ডেকোরেশন হবে সাইডে চকলেট ও ভ্যানিলা ক্রীম দিয়ে।

যেভাবে তৈরি করবেন :ডিমের সাদা অংশ এবং কুসুম আলাদা করুন। সাদা অংশের মেরাং তৈরি করে চিনি, ভ্যানিলা মেশান। ১০ মিনিট বিট করুন। ময়দা গুড়া দুধ, বেকিং পাউডার, আলতো হাতে মেশান। ওভেনে ১৬০ ডিগ্রিতে নীচে ৩০ মিনিট বেক করুন। গোলাপ ফুল দিয়ে বাস্কেট কেক ডেকোরেশন করুন।

ড্রাই ফ্রুট কেক

উপকরণঃ– ২৫০ গ্রাম বাটার– ২০০ গ্রাম চিনি (পছন্দ অনুযায়ী চিনি দিতে পারেন)– ১ চা চামচ ভ্যানিলা এসেন্স – ৩ টি ডিম– ৪৫০ গ্রাম ময়দা– ১ চা চামচ বেকিং পাউডার– ১৫০ মিলিলিটার দুধ– ৪০০ গ্রাম ড্রাইফ্রুটস (কিশমিশ, মোরব্বা, বাদাম, চেরি ইত্যাদি)

প্রণালীঃ– ১৭০ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডে ওভেন প্রিহিট করতে দিন।– একটি প্যানে বাটার, চিনি ও ভ্যানিলা এসেন্স মিশিয়ে ভালো করে ফেটিয়ে নিন। এতে খানিকক্ষণ পর পর ১ টি করে ডিম দিয়ে ভালো করে ফেটিয়ে নিতে থাকুন।– ময়দা ও বেকিং পাউডার একসাথে মিশিয়ে নিন এবং অর্ধেক পরিমাণে ময়দার মিশ্রন ডিমের মিশ্রনে নিয়ে ফোল্ড করে করে মিশিয়ে নিন। এর মধ্যে অর্ধেক পরিমাণ দুধ দিয়ে দিন।

এরপর আবার বাকি অর্ধেক পরিমাণে ময়দা ও দুধ দিয়ে মিশিয়ে নিন।– এরপর এতে দিয়ে দিন ড্রাইফ্রুটগুলো এবং আসতে করে ফোল্ড করে মিশিয়ে ফেলুন।– একটি বেকিং মোল্ডে বাটার গলিয়ে ব্রাশ করে গ্রিজ করে নিন। এতে কেকে মিশ্রন দিয়ে দিন।– এরপর তা ওভেনে দিয়ে দেড় ঘণ্টা বেক করে নিন। অথবা কেকে একটি টুথপিক দিয়ে দেখুন কেক হয়েছে কিনা এবং সেই সময় পর্যন্ত বেক করে নিন।– কেক বেক করা হলে ওভেন থেকে বের করে ৫ মিনিট ঠাণ্ডা হতে দিন। এরপর স্লাইস করে কেটে মজা নিন সুস্বাদু ড্রাই ফ্রুট কেক এর।

 

গাজরের কেক

উপকরণ: ডিম- ৪টি, ময়দা- ১ কাপ, চিনি- ১ কাপ, তেল/ঘি/বাটার- ১ কাপ, ঘিয়ে ভাজা গাজর- ১ কাপ, [গ্রেটেড], গুঁড়া দুধ- ২ টেবিল চামচ, বেকিং পাউডার দেড় চা চামচ।

প্রস্তত প্রনালি: ডিম ভালোভাবে চিনি দিয়ে বিট করুন। এতে অল্প অল্প ময়দা দিয়ে বিট করুন। তারপর দুধ, বেকিং পাউডার, গাজর কুচি দিয়ে ভালোভাবে বিট করুন। ঘি ও তেল মেশান। একটি সস প্যানে তেল মেখে, কাগজে তেল মাখিয়ে মিশ্রণটি ঢেলে দিন। অন্য একটি পাত্রে বালি বিছিয়ে চুলায় গরম করে নিন।কেকের পাত্রটি ঢেকে বসিয়ে দিন। ৪৫ মিনিট পর কেকটি ফুলে উঠলে নামিয়ে ফেলুন। ঠাণ্ডা হলে সাজিয়ে পরিবেশন করুন।

চকলেট কেক

উপকরণ:১) ময়দা – ১কাপ২) চিনি – ১কাপ৩) তেল – ১/২কাপ (হাফকাপ)৪) পাউডারদুধ – ২টে: চা:

৫) বেকিংপাউডার – ১চা: চা:৬) ডিম – ৩টা৭) ভেনিলাএসেন্স – ১/২চা: চা:৮) লবন – ১চিমটি ( ইচ্ছা )৯) কোকোপাউডার – ৩টে: চা:

প্রণালি:১) চালনিতে ময়দা,পাউডার দুধ, বেকিং পাউডার, কোকো পাউডার, লবন চেলে নিতে হবে।২) একটা বোলে ডিম ভালভাবে ব্লেন্ড করতে হবে এগ বিটার না থাকলে কাটা চামচ দিয়ে জোরে ফেটতে হবে। ডিমটা ভাল করে ফেটা হলে অল্প অল্প করে চিনি দিয়ে ফেটতে হবে।৩) চিনি ভাল ভাবে গলে গেলে ভেনিলা এসেন্স ও তেল দিতে হবে ।৪) তারপর চেলে রাখা ময়দা দিয়ে ভাল ভাবে মেশাতে হবে। ব্যাস “ব্যাট্যার” রেডি। এবার হাঁড়িতে সামান্য তেল লাগিয়ে “ব্যাট্যার” ঢেলে দিন।( ৩ পাউন্ডের চুলায় কেক বানানোর হাঁড়ি পাওয়া যায়। ৩ পাউন্ডের হাঁড়িতে ২ পাউন্ড কেক ভালভাবে হয়)৫) এবার চুলার আঁচ মাঝারি থেকে একটু কম আঁচে রাখতে হবে, তার উপর একটা “তাওয়া ” দিতে হবে। এবার হাঁড়ির নিচে অংশ বসিয়ে তার উপর হাঁড়ি বসিয়ে ঢাকনা দিয়ে দিন। ২৫/ ৩৫ মিঃ লাগবে হতে।কেক ঠান্ডা হলে একটা প্লেটে উল্টা করে ঢেলে দিয়ে কেক পরিবেশন করুন।

কেকের ক্রিম যেভাবে করবেন দুইটি ডিমের সাদা অংশ খুব ভালো ভাবে ইলেকট্রিক বিটারে বিট করে ফোম করে নিতে হবে। ১০০ গ্রাম ঠাণ্ডা বাটার নিয়ে বিট করতে হবে পুরোপুরি গলে না যাওয়া পর্যন্ত। তারপর আপনার স্বাদ মত আইসিংসুগার বিট করতে হবে।সুগার ভালো ভাবে মিশে গেলে ভ্যানিলা এসেন্স ও দুটি আইস কিউব আবার বিট করতে থাকুন! আইস কিউব গলে গেলে নরমাল ফ্রিজে ১০ মিনিট রাখুন। বের করে আবার বিট করুন অথবা চাইলে পছন্দ মতো রঙ দিয়ে বিট করে নিলেই ক্রিম রেডি। মনে রাখবেন ক্রিমের ক্ষেত্রে এখানে ভালোভাবে বার বার বিট করাটাই আসল।তাই ইলেকট্রিক বিটারই ভালো কাজে আসবে এখানে।

অরেঞ্জ কেক

উপকরণ: মাখন – ১৫০ গ্রাম, চিনি – ১৫০ গ্রাম, ডিম – ৩টে, ময়দা – ২০০ গ্রাম, ১ চিমটে লবন, বেকিং পাউডার – দেড় চা চামচ, কমলালেবু – ১টার রস, সামান্য কমলালেবুর খোসা কোরানো দিতে পারেন ইচ্ছে হলে।

প্রণালী: মাখন ও চিনি ভাল করে মেশান। মেশাতে মেশাতে যখন সাদা এবং হালকা হয়ে যাবে তখন বুঝবেন যে ফেটানো হয়েছে। ডিম ৩টা হালকা করে ফেটিয়ে রাখবেন। এবারে ফেটানো ডিমটা অল্প অল্প করে মাখন- চিনির মিশ্রণে মেশান। ময়দা, লবণ, বেকিং পাউডার একসঙ্গে মেশান। ময়দাটা মেশানো হয়ে গেলে কমলালেবুর রসটা মেশান। ৭ ইঞ্চি কেকের টিনে মাখন অথবা মার্জারিন মাখিয়ে মিশ্রণটি তাতে ঢেলে দিন। এবারে এক ঘন্টার মতো বেক করুন। খুব গরম ওভেনে দেবেন না।

স্ট্রবেরি কেক

উপকরনঃ ডিম ৪ টি, ময়দা ১ কাপ, মাখন / তেল ১ কাপ, বেকিং পাওডার ১ চা চামচ, গুরা দুধ ২ টেবিল চামচ, চিনি ১ কাপ, ভ্যানিলা এসেন্স ১ চা চামচ, হাফ কাপ স্ট্রবেরি পিওরি (স্ট্রবেরি ব্লেন্ড করা), অল্প কিছু স্ট্রবেরি কুচি, কিসমিস, মরব্বা

প্রনালী– ময়দার সাথে বেকিং পাউডার মিশিয়ে চেলে নিন। চিনি পাটায় কিংবা বেলেন্ডারে মিহি গুঁড়া করুন। এবার ডিমের সাদা অংশ বিটার দিয়ে ফোম তৈরি করুন। কুসুম,মাখন ও চিনি দিয়ে আরও ভাল ভাবে বিট করুন। স্ট্রবেরি পিওরি,চালা ময়দা ও দুধ বিট করতে  থাকুন। মিশ্রণে ভেনিলা এসেন্স দিয়ে বিট করুন। এবার বেকিং ট্রেতে খামির ঢেলে দিন। উপরে স্ট্রবেরি কুচি,কিসমিস, মরব্বা দিয়ে দিন।

বেকিং ওভেনে :

– প্রিহিট করে ১৮০ ডিগ্রি তাপমাত্রায় ১ ঘণ্টা বেক করুন।– আধা ঘণ্টা পর পরিবেশন করুন।

সিফন কেক

উপকরণ :১. ১ কাপ ময়দা,২. ৩টি ডিম,৩. ১ কাপ গুঁড়া চিনি,৪. ১ টেবিল চামচ ভ্যানিলা এসেন্স,৫. ১ চা চামচ বেকিং পাউডার,৬. ১/৩ কাপ দুধ,৭. ১/২ কাপ তেল,৮. ১/৪ কাপ নারকেল গুঁড়া,৯. মাখন বেকিং পাত্র লাগানোর জন্য।

প্রণালি : প্রথমে ওভেন ১৫০ ডিগ্রী সেলসিয়াসে প্রি হিট করে নিন। তারপর ডিম থেকে কসুম এবং সাদা অংশ আলাদা করে নিন। এবার ডিমের কসুম, চিনি, ভ্যানিলা এসেন্স ভাল করে মিশিয়ে নিন।  ভাল করে মিশানো হয়ে গেলে ময়দা এবং বেকিং পাউডার একসাথে চেলে ডিমের কসুমের সাথে মিশিয়ে নিন। এবার ডিমের সাদা অংশ বিটার দিয়ে ভাল করে বিট করে নিন। বিট করার সময় এতে অল্প অল্প করে চিনি মিশাতে হবে।

তারপর ডিমের কুসুমের মিশ্রণে তেল, দুধ দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে নিন। তারপর এতে প্রথমে ১/৩ ডিমের সাদা অংশ দিয়ে ভাল করে মেশান। তারপর এতে ডিমের সাদা অংশের বাকীটুকু এবং নারকেল গুঁড়া দিয়ে দিন। সবগুলো উপাদান ভাল করে মিশিয়ে নিন। এখন ব্রেক করার পাত্রে অল্প মাখন লাগিয়ে নিন। এবার কেকের বাটারটা পাত্রে দিয়ে প্রি হিট করা ওভেনে ৫০-৫৫ মিনিট ব্রেক করতে দিন।

টিপস :কেক নামানোর আগে কাঠি বা চামচ দিয়ে দেখে নেবেন কেক ভিতরে কাঁচা রয়ে গেছে কিনা। ব্রেক করার পাত্রে মাখনের সাথে সামান্য পরিমাণে ময়দা ছিটিয়ে নিতে পারেন। এতে কেক পাত্রের গায়ে লেগে যাবে না।

প্রজাপতি কাপকেক

উপকরণ : মাখন ১২৫ গ্রাম,  ভ্যানিলা এসেন্স ১ চা-চামচ,  ব্লেন্ড করা চিনি এক কাপের তিন ভাগের দুই ভাগ,  ডিম ৩টি,  ময়দা দেড় কাপ, বেকিং পাউডার ৩ চা-চামচ,  দুধ আধা কাপ,  জ্যাম আধা

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বোচ্চ পঠিত

Quis autem vel eum iure reprehenderit qui in ea voluptate velit esse quam nihil molestiae consequatur, vel illum qui dolorem?

Temporibus autem quibusdam et aut officiis debitis aut rerum necessitatibus saepe eveniet.

কপিরাইট © ২০১৫ - মিশ্র বাংলা এর একটি প্রচেষ্টা

To Top